আর কিছু বাদ রইল না’, মিথিলাকে নিয়ে বি’স্ফোরক তথ্য, বিস্তারিত পড়ুনঃ

শোবিজ অঙনের সবচেয়ে আলোচিত নাম রাফিয়াত রশিদ মিথিলা। বিশেষ করে গত কয়েক মাস। তাহসানের সাথে ঘর বাঁ’ধার পর দারুণ এক রসায়ন। হুট করে সেই ঘর ভে’ঙে যাওয়া। নতুন করে মিথিলার স্বপ্ন সাজানো।

এসব নিয়ে নিয়মিতই খবরের শিরোনাম হয়েছে।আজ যখন সারা বিশ্ব কাঁপছে ক’রোনায়। যখন পাড়া মহল্লায় চলছে ক’রোনা প্রতিরোধের মাইকিং। কিংবা সামাজিক দূরত্ব মেনে প্রা’ণঘা’তী ভাই’রাসের কবল থেকে বাঁচার নানাবিধ নির্দেশনা।

তখনই আবার আলোচনার টেবিলে মিথিলা।এক বছর সেখানে থাকার পর তিনি বাংলাদেশে ফিরে এসে স্কলাস্টিকায় হাই স্কুলে কাজ শুরু করেন। তিনি নর্দান বিশ্ববিদ্যালয়ে লেকচারার হিসেবেও কর্মরত ছিলেন।

অভিনয়েও সমানভাবে কুড়িয়েছেন সুনাম।২০০৬ সালের দিকে সঙ্গীতশিল্পী তাহসানের সঙ্গে বিয়ে হয় মিথিলার। বিয়ের পরে উভয়ে যৌথভাবে বের করেছেন একাধিক গানের এ্যালবাম। ২০১৩ সালে এই দম্পতির ঘর আলো করে আসে একমাত্র কন্যাস’ন্তান আইরা।

এ দিকে তাহসানও তার নিজের মতো করে সময় কা’টাচ্ছেন। নতুন করে ভাবছেন! এরিমাঝে সবার জানা তাহসানকে অনেকটাই ভু’লে গেছেন মিথিলা। তাকে নিয়ে এখন আর কোনো রকম মন্তব্যও করেন না তিনি। এই দুটি লাইন কি আদৌ সত্য?

সম্প্রতি ইনস্টাগ্রাম ঘেঁটে যা মিলল তাতে বোধ হয় অন্য কিছুরও গন্ধ পাওয়া যায়। কি সেই অন্য কিছু। চলুন একটু খোলাসা করে বলি। লকডাউনের কারণে বাংলাদেশে আ’টকা পড়েছেন মিথিলা। আর সৃজিত আছেন ভারতে।

দুজনের মধ্যে মুখোমুখি দেখা না হলেও ফোনে, অনলাইনে ঠিকই কথা চলে।তার মাঝে আবার তাহসানও কিন্তু আছেন। তবে বাস্তবিক নয়, ভার্চুয়াল জগতে। ছাড়াছাড়ি হয়ে গেলেও তাহসানকে এখনো পুরোপুরি ডিলিট করেননি মিথিলা।

যেমন প্রমাণ মিলল মঙ্গলবার (১২ মে)। দেখা যাচ্ছে, মিথিলা ইনস্টাগ্রামে তাহসানকে ফলো করছেন।তারই একটা স্কিনশট নেট দুনিয়ায় ছড়িয়েও পড়েছে। কয়েকটি গ্রুপেও এ নিয়ে ভীষণ আলোচনা।

কেউ কেউ বলছেন এখনো তাহলে তাহসানকে ভোলেননি মিথিলা। কেউ বলছেন লুকিয়ে লুকিয়ে তাহলে তাহসানের ছবি দেখেন মিথিলা। একজন আবার বির’ক্তির সুরে বলছেন আর কিছু বাদ রইল না।

Facebook Comments
custom_html_banner1

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *