নোয়াখালীতে ঘূর্ণিঝড় আম্পানের প্রভাবে হাতিয়ায় ২৬ গ্রামের ৫ শতাধিক ঘর বাড়ি প্লাবিত!

ফখরুদ্দিন মোবারক শাহ রিপন,স্টাফ রিপোর্টারঃ
ঘূর্ণিঝড় আম্পানের প্রভাবে নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ায় জোয়ারের পানিতে মেঘনা নদীর উপকূূল সংলগ্ন নিম্নাঞ্চলের ২৬টি গ্রামের ৫ শতাধিক ঘর বাড়ি প্লাবিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার ২১ মে সকালের দিকে হাতিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রেজাউল করিম গনমাধ্যমকে জানান, বুধবার বিকেলে ঘূর্ণিঝড় আম্পানের প্রভাবে নদীর পানি বেড়ে উপজেলার নিঝুম দ্বীপ ইউনিয়নের ১২টি গ্রাম, চরকিং ইউনিয়নের ৫টি গ্রাম, সুখচর ইউনিয়নের ৩টি গ্রাম, চরঈশ্বর ইউনিয়নের ৩টি গ্রাম, বয়ারচর ইউনিয়নের ৩টি গ্রাম জোয়ারের পানিতে প্লাবিত হয়েছে।

প্লাবিত গ্রামগুলো হলো- উপজেলার মদিনা গ্রাম, মুন্সি গ্রাম, বান্দাখালী, আর্দশ গ্রাম, চানন্দি গ্রাম, চৌধুরী গ্রাম, আলীনগর, ফরিদপুর গ্রাম, মোল্লা গ্রাম, টেলিপাড়া, মৌলভি গ্রাম, তাহার পাড়া গ্রাম, মাসুদ চেয়ারম্যান গ্রাম, ডালচর গ্রাম অন্যতম।

স্থানীয়রা জানান, আম্পানের প্রভাবে উপজেলার সুখচর ইউনিয়নের দুই কিলোমিটার বেড়িবাঁধ, নলচিরা ইউনিয়নের তিন কিলোমিটার বেড়িবাঁধ, চরঈশ্বর ইউনিয়নের তিন কিলোমিটার বয়ারচর ইউনিয়নের তিন কিলোমিটার ও ক্যারিংচর ইউনিয়নের দুই কিলোমিটার বেড়িবাঁধ নাজুক থাকার কারণে জোয়ারের পানিতে গ্রামগুলো প্লাবিত হয়েছে। জোয়ারের পানিতে গ্রামগুলো প্লাবিত হয়ে বেশ কিছু কাঁচাঘর ও কয়েকটি স্লাইক্লোন শেল্টারের নিচতলা পানিতে ডুবে গেছে। গ্রাম প্লাবিত হয়ে পরবর্তীতেও ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কা করছেন স্থানীয় ভুুুক্তভোগীরা।

Facebook Comments
custom_html_banner1

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *