বিয়ের ৩ দিন পর ন’ববধূর শরীরে করো’না, কো’য়ারেন্টাইনে ৩২।

নি’য়মিত অ্যান্টিভাই’রাল ওষুধ খেয়ে করো’না র উ’পসর্গ সর্দি, কাশি, জ্বর লুকিয়েই বিয়ের পিঁড়িতে বসেন এক তরুণী। বিয়ের পর সংসারের নতুন দায়িত্ব বুঝে পাওয়ার আগেই প্র’কাশ পাওয়া করো’না ভা’ই’রাস।

প’রীক্ষায় নববধূর শ’রীরের ভা’ই’রাসটি মিললে শ্বশুরবাড়ির সংস্প’র্শে আসা ৩২ জনকে কোয়ারেন্টাইনে পা’ঠানো হয়েছে।-খবর সংবাদ প্রতিদিনের।সংবাদমাধ্যমটির একটি প্র’তিবেদনে জা’নানো হয়, ভা’রতের মধ্যপ্রদেশের ভোপালের জাটখেড়ির পঁচিশ বছরের ওই তরুণী কিছুদিন থেকে অ’সু’স্থ ছিলেন।

জ্ব’রের স’ঙ্গে সর্দি-কাশিও ছিল তার।সামনে বিয়ে থাকায় অ্যান্টিভাই’রাল ওষুধ খেয়ে করো’না ভা’ই’রাসের উ’পসর্গগুলো দমিয়ে রাখেন তিনি। বিয়ের তিনদিন পর শ্বশুরবাড়িতে গিয়ে অ’সু’স্থতা বাড়তে থাকে। পরে নববধূর নমুনা সংগ্রহ করে করো’না ভা’ই’রাসের পরীক্ষার জন্য ল্যাবে পা’ঠানো হয়।গত বৃহস্পতিবার পরীক্ষার ফলাফল পজিটিভ এলে ওই তরুণীকে হাসপাতা’লে নিয়ে যান স্বা’স্থ্যক’র্মী রা। একই স’ঙ্গে তার সংস্প’র্শে আসা ৩২ জনকে কোয়ারেন্টাইনে পা’ঠানো হয়েছে।

এ’দিকে ভা’রতের অন্যান্য রাজ্যের মতো মধ্যপ্রদেশেও করো’না ভা’ই’রাসে আক্রা’ন্ত রো’গীর সংখ্যা বাড়ছে। এ রাজ্যে মৃ’তের সংখ্যা ২৫০ ছাড়িয়েছে। এর মধ্যে লকডাউন শিথিল করায় ১৫ দিনে রাজ্যটিতে ১০০টি মতো বিয়ে হয়েছে। এতে স্বা’স্থ্য সুর’ক্ষা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে।

Facebook Comments
custom_html_banner1

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *