1. ashrafali.sohankg@gmail.com : aasohan :
  2. alireza.kg2014@gmail.com : Ali Reza Sumon : Ali Reza Sumon
  3. hrbiplob2021@gmail.com : News Editor : News Editor
রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ১১:৫৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:-
জাতীয় স্লোগান হিসেবে ‘জয় বাংলা’ ব্যবহারের নির্দেশঃ হাইকোর্ট কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলায় বিশ্ব এন্টিমাইক্রোবিয়াল সচেতনতা সপ্তাহ পালিত ৬ দিনে মামলা নিষ্পত্তি কিশোরগঞ্জে ইউএইচএন্ডএফপিও ফোরামের পরিচিতি ও সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত কিশোরগঞ্জে সড়ক দুর্ঘটনা রোধকল্পে নিসচা’র প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত কিশোরগঞ্জে জাতীয় নিরাপদ দিবস উপলক্ষে বর্নাঢ্য র‌্যালি ও আলোচনা সভা কিশোরগঞ্জ জেলা পরিষদ সদস্য নির্বাচিত হলেন আবু তাহের নিকলীতে পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন কিশোরগঞ্জে জাতীয় স্যানিটেশন মাস শুরু পাগলা মসজিদের এবার মিলল ১৫ বস্তায় ৩ কোটি ৮৯ লাখ ৭০ হাজার ৮৮২ টাকা কিশোরগঞ্জ জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি’র দায়ীত্ব থেকে শরীফকে অব্যাহতি

বেতন চাওয়ায় প্রতিবন্ধী কিশোরের শরীর পুড়িয়ে দিল দোকান মালিক।

রিপোর্টার:
  • সর্বশেষ আপডেট : রবিবার, ৩১ মে, ২০২০
  • ৬৮ সংবাদটি দেখা হয়েছে

ফ’রিদপুরের মধুখালী মরিচ বাজারে বেতন চাওয়ায় এক বুদ্ধি প্রতিব’ন্ধী দোকান ক’র্মচারী কি’শোরের শরীর গ’রম খু’ন্তি ও পা’ইপ দি’য়ে পু’ড়িয়ে দেয়ার অ’ভিযোগ পাওয়া গেছে। নি’র্যাতনের শি’কার দোকান ক’র্মচারী তাপসকে (১৪) জে’লার মধুখালী উপজে’লা স্বা’স্থ্য ক’মপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

শ’নিবার (৩০ মে) দুপুরে মধুখালী উপজে’লা স্বা’স্থ্য ক’মপ্লেক্সে আ’হত তাপসকে দেখতে যান ফরিদপুরের পুলিশ সুপার মো: আলীমুজ্জামান।স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, বোয়ালমারী উপজে’লার ঘোষপুর ইউনিয়নের কান্দাকুল গ্রামের বুদ্ধি প্রতিব’ন্ধী তাপস প্রায় এক বছর ধরে মরিচ বাজারের বিপ্লব সাহার চা ও মুদি দোকানে কাজ করে আসছে।

স্থা’নীয় সূ’ত্রে জানা গেছে, বোয়ালমারী উপজে’লার ঘোষপুর ইউনিয়নের কান্দাকুল গ্রামের বুদ্ধি প্রতিব’ন্ধী তাপস প্রায় এক বছর ধরে মরিচ বাজারের বিপ্লব সাহার চা ও মুদি দোকানে কাজ করে আসছে।

ম’ধুখালী থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আমিনুল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় থানায় মা’মলা করা হয়েছে।

মা’মলার ত’দন্তকারী ক’র্মকর্তা ও’সি (ত’দন্ত) রথীন্দ্রনাথ জানান, ঘটনায় জ’ড়িত থাকার অ’ভিযোগে দুইজনকে গ্রে’ফতার করা হয়েছে। দুপুরে ফরিদপুরের পুলিশ সুপার মো. আলীমুজ্জামান হা’সপাতালে আ’হত তাপসকে দেখতে গিয়েছিলেন।

 

আরও পড়ুনঃঃ

শ্বশুরের কুপ্রস্তাব, গৃহবধুর যৌনাঙ্গে মাটি ঢুকিয়ে হ’ত্যা করল স্বামী-শ্বাশুরি।

নী’লফামা’রীতে গৃহবধূ হ’ত্যার ২৪ ঘণ্টার মধ্যে মৃ’ত্যুর র’হস্য উদঘাটনসহ তিন আ’সামিকে গ্রে’ফতার করেছে পু’লিশ। সদর উপজে’লার খো’কশাবাড়ি ইউনিয়নের হালিরবাজার মাস্টারপাড়ার গৃহবধূ মীনা রাণী ঋষিকে (২০) শ্বশুড়ের নেতৃত্বে হ’ত্যা করা হয়।

ওই হ’ত্যাকা’ণ্ডে অংশ নেন স্বামীসহ শ্বশুড় পরিবারের লোকজন। পারিপারিক ক’লহের জে’রে মুখে ও যৌ’নাঙ্গে মাটি প্রবেশ করিয়ে শ্বা’সরো’ধ করে হ’ত্যা করা তাকে। নি’হত মীনা ওই গ্রামের তি’মোথীয়ো ঋষির স্ত্রী’। শনিবার দুপুরে নীলফামা’রী পু’লিশ সু’পারের কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে অনু’ষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জা’নান পু’লিশ সুপার মোহাম্ম’দ মোখলেছুর রহমান।

সং’বাদ সম্মেলনে পু’লিশ সুপার বলেন, গত ২৮ মে সকালে খো’কশাবাড়ি ইউনিয়নের মাস্টারপাড়াস্থ শ্বশুড়বাড়ির পাশে হা’লিরবাজার সংল’গ্ন এম ইউ উ’চ্চ বি’দ্যালয়ের পিছনে শুকনো একটি ডোবা থেকে মীনা রানী ঋষির অর্ধন’গ্ন ম’রদে’হ উ’দ্ধার করে পু’লিশ।

এর আ’গে গত ২৭ মে রাতে পারিবারিক ক’লহের জে’র ধ’রে তাকে হ’ত্যা করে শ্বশুড়, স্বামী, সৎ শাশুড়ি এবং কা’কি শাশুড়ি।গত ২৮ মে প্রাথমিক জি’জ্ঞাসাবাদে পু’লিশের কাছে এবং ২৯ মে বিকেলে ঘ’টনার সত্যতা স্বী’কার করে নীলফামা’রী জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকী’ম জাহিদ হা’সানের কাছে জবানব’ন্দি দেন নি’হতের স্বামী তিমোথিয়ো ঋষি (২১), সৎ শাশুড়ি শিউলী রাণী ঋষি (৪২) এবং কাকি শাশুড়ি মিনতী রাণী ঋষি (৩৬)।

শ্ব’শুড়ের বি’রুদ্ধে এমন অ’পবাদ দেওয়ায় মীনাকে শা’রীরিক এবং মা’নসিক নি’র্যাতন করতো স্বামী তিমোথীয়ো। ওই নি’র্যাতন সহ্য ক’রতে না পেরে গত ২৭ মে রাত ১১টার দিকে বাবার বাড়িতে ফি’রে যাওয়ার প্র’স্তুতি নিলে বা’ধা দেয় স্বামীর পরিবারের লোকজন। এসময় কৌশলে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায় মীনা। তাকে ধ’রতে ধা’ওয়া করে স্বামীর পরিবারের লোকজন।

এ’কপর্যায়ে বা’ড়ির পাশে হালীর বাজার সংল’গ্ন এম.ইউ উচ্চ বিদ্যালয়ের পিছনের ডোবার পাশে মীনাকে বসে থাকতে দেখে স্বামীর পরিবারের লোকজন। এসময় শ্বশুড় গনেশ ঋষির নির্দে’শে মিনার হাতপা চে’পে ধ’রে সৎ শাশুড়ি শিউলী রাণী, কাকী’ শাশুড়ি মিনতী রাণী ও স্বামী তিমোথীয়ো। এরপর শ্বশুড় গনেশ মীনার গ’লা ও মুখ চে’পে ধ’রে শ্বা’সরো’ধ করে হ’ত্যা করে।

মী’নার মৃ’ত্যু নি’শ্চিতের পর ঘ’টনাকে ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার জন্য তার মুখে ও যৌ’নাঙ্গে মাটি প্রবেশ করিয়ে ম’রেদহ অর্ধন’গ্ন অব’স্থায় ফে’লে রেখে চলে যায় তারা।এরপর মীনা নিখোজ হয়েছে ম’র্মে প্রতিবেশিদের বা’ড়িতে খোঁজাখুজি করে বাড়িতে ফি’রে যায়।

প’রের দিন সকালে প্রতিবেশিদের মাধ্যমে মীনার ম’রদে’হ প’ড়ে থাকার খবরে ঘ’টনাস্থলে ছুটে আসেন তারা।

স’দর থা’নার ভা’রপ্রাপ্ত ক’র্মক’র্তা মমিনুল ইস’লাম বলেন, মীনা রাণী ঋষি হ’ত্যাকা’ণ্ডের ঘ’টনায় ২৮ মে বিকেলে নি’হতের ভাই সুকুমা’র ঋষি বা’দী হয়ে একটি হ’ত্যা মা’মলা করেন।

ও’ই মা’মলায় মী’নার স্বামী, সৎ শাশুড়ি ও কাকী’ শাশুড়িকে গ্রে’প্তার দেখিয়ে গত ২৯ মে নীলফামা’রী জ্যেষ্ঠ বিচারকি হাকী’ম জাহিদ হাসানের আ’দালতে হাজির করা হলে তারা ১৬৪ ধারায় স্বী’কারোক্তিমূলক জবানব’ন্দি দেন।

তা’দের কা’রাগারে পা’ঠানো হয়েছে। তবে মা’মলার অন্যতম আসামী মীনা রানীর শ্বশুড় গণেশ ঋষি ঘ’টনার পর থেকেই প’লাতক রয়েছেন।

Facebook Comments Box

খবরটি পছন্দ হলে শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরির আরও খবর

All rights reserved © 2021 Newsmonitor24.com
Theme Customized BY IT Rony