1. ashrafali.sohankg@gmail.com : aasohan : Ashraf Ali Sohan
  2. kgnewssumon@gmail.com : arsumon :
শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৯:৫০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:-
জাতীয় স্লোগান হিসেবে ‘জয় বাংলা’ ব্যবহারের নির্দেশঃ হাইকোর্ট বন্দুকের নল ঠেকিয়ে ক্ষমতায় থাকা যাবে না- শায়েখে চরমোনাই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাশে অবৈধ ইটভাটা; ১ লক্ষ টাকা জরিমানা নিকলীর সিংপুরে ভায়া পরীক্ষা ও ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প অনুষ্ঠিত পাকুন্দিয়ায় ১০ হাজার কম্বল নিয়ে শীতার্তদের পাশে ছমির-হালিমা ট্রাস্ট কিশোরগঞ্জ জেলা রিপোর্টার্স এসোসিয়েশনের ক্ষুদ্র প্রয়াস অস্ট্রেলিয়ায় পড়তে ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের নিয়ে উন্মুক্ত সেমিনার অনুষ্ঠিত কিশোরগঞ্জে পরিবেশ অধিদপ্তরের অভিযানে ইটভাটাকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা কিশোরগঞ্জে শব্দদূষণ নিয়ন্ত্রণে সচেতনতামূলক প্রশিক্ষণ শসৈনইমেক হাসপাতাল কিশোরগঞ্জে চালু হলো কিডনি ডায়ালাইসিস ইউনিট বিজয় দিবসে কুলিয়ারচর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে মুক্তিযোদ্ধা কেবিন ও প্যাথলজিক্যাল ল্যাব উদ্বোধন

প্রে’মের টানে হি’ন্দু থেকে মুবসলিম হলো গো’পালগঞ্জের তপন।

রিপোর্টার:
  • সর্বশেষ আপডেট : বৃহস্পতিবার, ২৮ মে, ২০২০
  • ১৮০ সংবাদটি দেখা হয়েছে

গো’পালগঞ্জের মু’কসুদপুর উ’পজে’লার মোচনা ইউনিয়নের বামনিয়া গ্রামের সন্তোষ বিশ্বাসের ছেলে তপন বিশ্বাস। ব্যক্তিগত জীবনে তিনি ছিলেন একজন ধর্মপ্রা’ণ হিন্দু।

নি’য়মিত বি’ষ্ণু পূ’জা দিতেন সে। তিনি বিয়ে করে হিন্দু থেকে মু’সলিম হয়ে গেলেন।তপন বিশ্বাস নাম বদলে এখন নাম রেখেছে শাহ আলম মীনা। এ ঘটনায় পুরো মুকসুদপুর উপজে’লার মোচনায় চাঞ্চল্য ও আলোড়ন সৃষ্টি হয়েছে।

জা’না গে’ছে, গোপালগঞ্জের মুকসুদপুর উপজে’লার মোচনা ইউনিয়নের তপন বিশ্বাসের সাথে একই গ্রামের বশার মীনার মেয়ে হাজেরা আক্তারের দীর্ঘদিন ধরে প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছিল।একইদিন রাতে মোচনা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান মোল্যা স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গদের নিয়ে মসজিদের ইমামের মাধ্যমে তাকে আবার কালেমা পাঠ করান।

এ স’ময় স্থানী’য়দের সাথে তাকে মু’সলিম হিসাবে পরিচয় করিয়ে দেন।স্থানীয়রা জানায়, দীর্ঘদিন ধরে হাজেরা আক্তার ও তপনের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছিল। এরই মধ্যে উভ’য়ে বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন। তাই সে হিন্দু ধর্ম ত্যাগে করে মু’সলিম ধর্ম গ্রহণ করেন।

এ বি’ষয়ে মো’চনা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান মোল্যা বলেন, বি’ষয়টি মেয়ের বাবা ও তপন (নতুন নাম শাহ আলম মীনা) আমাকে অবগত করে।

আ’মি এ’লাকার গ’ণ্যমান্য ব্যক্তিদের সম্মতিক্রমে কাজী ডেকে ইসলাম ধর্মের নিয়ম অনুসারে দ্বিতীয়বারের মত তপনকে (শাহ আলম) মেয়ের বাবাকে হাজির রেখে ও তার সম্মতিক্রমে বিবাহর কাজ সম্পন্ন করি।

Facebook Comments Box

খবরটি পছন্দ হলে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরও খবর