1. ashrafali.sohankg@gmail.com : aasohan : Ashraf Ali Sohan
  2. kgnewssumon@gmail.com : arsumon :
বুধবার, ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০১:২১ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:-
জাতীয় স্লোগান হিসেবে ‘জয় বাংলা’ ব্যবহারের নির্দেশঃ হাইকোর্ট বন্দুকের নল ঠেকিয়ে ক্ষমতায় থাকা যাবে না- শায়েখে চরমোনাই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাশে অবৈধ ইটভাটা; ১ লক্ষ টাকা জরিমানা নিকলীর সিংপুরে ভায়া পরীক্ষা ও ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প অনুষ্ঠিত পাকুন্দিয়ায় ১০ হাজার কম্বল নিয়ে শীতার্তদের পাশে ছমির-হালিমা ট্রাস্ট কিশোরগঞ্জ জেলা রিপোর্টার্স এসোসিয়েশনের ক্ষুদ্র প্রয়াস অস্ট্রেলিয়ায় পড়তে ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের নিয়ে উন্মুক্ত সেমিনার অনুষ্ঠিত কিশোরগঞ্জে পরিবেশ অধিদপ্তরের অভিযানে ইটভাটাকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা কিশোরগঞ্জে শব্দদূষণ নিয়ন্ত্রণে সচেতনতামূলক প্রশিক্ষণ শসৈনইমেক হাসপাতাল কিশোরগঞ্জে চালু হলো কিডনি ডায়ালাইসিস ইউনিট বিজয় দিবসে কুলিয়ারচর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে মুক্তিযোদ্ধা কেবিন ও প্যাথলজিক্যাল ল্যাব উদ্বোধন

ফুলবাড়ীতে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে নারী ও শিশুসহ আহত ১০

রিপোর্টার:
  • সর্বশেষ আপডেট : বুধবার, ১৩ মে, ২০২০
  • ১৯৫ সংবাদটি দেখা হয়েছে

এজি লাভলু, স্টাফ রিপোর্টার

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষে নারী ও শিশুসহ উভয় পক্ষের ১০ ব্যক্তি আহত হয়েছে। আহত ১০ জনর মধ্যে এক পক্ষের নারী-শিশুসহ ৫ জনকে লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে ৩ জনের অবস্থা খুবই গুরুতর। ঘটনাটি ঘটেছে ১৩ মে (বুধবার) দুপুরে ফুলবাড়ী উপজেলার নাওডাঙ্গা ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী কুরুষাফেরুষা গ্রামে।

স্থানীয়রা জানান, গত ১ মাস আগে উপজেলার কুরুষাফেরুষা গ্রামের মৃত সুরেন চন্দ্র রায়ের ছেলে বিপুল চন্দ্র রায়ের সঙ্গে তার আপন ভাতিজা নিখিল চন্দ্র রায়ের সাথে জমির সীমানাকে কেন্দ্র করে মারামারী হয়। ঐ সময় ভাতিজা নিখিল চন্দ্র আহত হয়। ঐ ঘটনার শালিসকে কেন্দ্র করে একই গ্রামের বমভােলার ছেলে সুজন চন্দ্র রায়ের সাথে মৃত নাছির উদ্দিনের ছেলে আতাউর রহমান আতার কথা কাটাকাটি হয় এবং দুইজনের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়।

এই ঘটনার জেরে বুধবার (১৩ মে) দুপুরে আবারও তাদের মাঝে কথাকাটা-কাটি ও উত্তেজনা দেখা দেয় এবং এক পর্যায়ে দুই পক্ষের দুই দফা রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ বাঁধে। এতে দুই পক্ষের নারী ও শিশুসহ ১০ জন আহত হয়। আহতরা হলেন কুরুষাফেরুষা গ্রামের মৃত পিশু চন্দ্র রায়ের ছেলে বমভোলা চন্দ্র (৪৫) ও তার ছেলে সুজন চন্দ্র (১৮), রমাকান্তের স্ত্রী রত্না রানী (৩৭), পুরপুল্ল্য চন্দ্র রায়ের ছেলে মিলন চন্দ্র (১৪), তুষার চন্দ্র (১০), দেবেনের ছেলে সুরেশ চন্দ্র (২৭), টগরা চন্দ্র রায়ের ছেলে বীরেন্দ্র নাথ (৫৭) ও মৃত নাছির উদ্দিনের ছেলে আতাউর রহমান আতা (৪৮), তার মামাতো ভাই রবিউল ইসলাম (২৫), পূর্বফুলমতি গ্রামের ইলিয়াসের ছেলে বেলাল (৪৫) এর মধ্য বমভােলা, রত্না রানী ও শিশু তুষারের অবস্থা গুরুতর।

প্রতিপক্ষ প্রভাবশালী হওয়ায় ঘটনার পর থেকেই সীমান্তঘেষা কুরুষাফেরুষা হিন্দু পল্লীতে আতংঙ্ক বিরাজ করছে বলে অনেকেই জানান।

খবর পেয়ে নাওডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মুসাব্বের আলী মুসা, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রেজাউল ইসলাম বন্ধন ও ফুলবাড়ী থানার এএসআই মোয়াজ্জেম হোসেন গুরুতর আহত হিন্দু পরিবারের নারী ও শিশুসহ ৫ জনকে চিকিৎসার জন্য লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে পাঠানাের ব্যবস্থা করে উভয় পক্ষের স্বজনদের মাঝে উত্তেজনা পরিস্থিতি শান্ত হওয়ার আহবান জানান। এ রিপাের্ট লেখা পর্যন্ত ওই এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করেছে।

এ ব্যাপারে ফুলবাড়ী থানার ওসি (তদন্ত) নবিউল হাসান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, পুলিশ ঘটনাস্থালে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করেছে। অভিযোগ পেলে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Facebook Comments Box

খবরটি পছন্দ হলে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরও খবর